৩, জুন, ২০২০, বুধবার | | ১১ শাওয়াল ১৪৪১

কালিহাতীর বঙ্গবন্ধুর সেতুর বাঁধে তীব্র ভাঙ্গনে হুমকির মুখে এলাকা

আপডেট: আগস্ট ৩১, ২০১৯

কালিহাতীর বঙ্গবন্ধুর সেতুর বাঁধে তীব্র ভাঙ্গনে হুমকির মুখে এলাকা

কালিহাতী (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি : কালিহাতীর বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব দক্ষিণ প্রান্তে রক্ষা বাঁধে তীব্র ভাঙন শুরু হয়েছে। প্রায় ১৫০ মিটার এলাকা ইতোমধ্যে নদী গর্ভে বিলীন হয়েছে। ফলে বঙ্গবন্ধু সেতু হুমকির কবলে পড়তে পারে। এদিকে কালিহাতী উপজেলার কয়েকটি গ্রাম রয়েছে ভাঙণের কবলে। নদী থেকে অবৈধ বালু উত্তোলন ও তীব্র স্রোতের কারনে এই ভাঙন শুরু হয়েছে। তবে ভাঙন রোধে শুক্রবার বিকাল পর্যন্ত তেমন কোন পদক্ষেপ নেয়নি সেতু কর্তৃপক্ষ।

সরেজমিনে দেখা যায়,বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব প্রান্তে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার গড়িলাবাড়ি এলাকায় বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ থেকে কাটা তারের বেড়া দিয়ে সীমানা দেওয়া হয়েছে। সেই বেড়ার ভেতরে সেতু রক্ষা বাঁধে বৃহস্পতিবার থেকে ভাঙন শুরু হয়েছে। শুক্রবার বিকাল পর্যন্ত সেই ভাঙণ অব্যাহত আছে। নদী গর্বে বিলীন হয়ে গেছে প্রায় ১৫০ মিটার এলাকা। কিন্তু শুক্রবার বিকাল পর্যন্ত সেতু কর্তৃপক্ষ থেকে ভাঙণ রোধে তেমন ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।

এলাকাবাসী বলেন, ‘শুকনা মৌসুমে যখন নদীতে পানি কম থাকে, তখন যদি বিবিএ কাজ করতো তাহলে এই ভাঙন হতো না। শতশত মানুষ বাড়ি ঘর হারিয়ে নিঃস্ব হতো না। এর জন্য ওরাই দায়ি।’

বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী তোফাজ্জল হোসেন বলেন, “ইতিমধ্যেই বাঁধের ১০০মিটার এলাকা ধ্বসে গেছে। এতে ৪২ মিটার গভীরতার সৃষ্টি হয়েছে। ভাঙন রোধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তিনি আরও বলেন এই ভাঙণ এলাকা বিবিএ-এর সীমানার মধ্যে। কিন্তু মূল গাইডে ভাঙণ হয়নি।”

এবিষয়ে কালিহাতীর ভারপ্রাপ্ত ইউএনও ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শাহরিয়ার রহমান বলেন, “বঙ্গবন্ধু সেতু এলাকায় ভাঙন রোধে ইতোমধ্যে বিবিএ ও পানি উন্নয়ন বোর্ড কাজ শুরু করেছে।”