১৬, জুলাই, ২০২০, বৃহস্পতিবার | | ২৫ জ্বিলকদ ১৪৪১

রংপুরে ৬টি আসনের ৬০টি মনোনয়নেরর মধ্যে বৈধ ৪৬টি, বাতিল ১৪টি

আপডেট: ডিসেম্বর ২, ২০১৮

রংপুরে ৬টি আসনের ৬০টি মনোনয়নেরর মধ্যে বৈধ ৪৬টি, বাতিল ১৪টি

মো. আশিক প্রামানিক (পীরগঞ্জ,রংপুর প্রতিনিধি):

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে
রংপুরের ৮টি উপজেলার  ৬টি আসনে দাখিল করা ৬০টি মনোনয়ন পত্রের মধ্যে ১৪ জনের মনোনয়ন বাতিল ও ৪৬ জনের বৈধ ঘোষণা করেছে রিটার্নিং কর্মকর্তা।
রংপুর-১ (গঙ্গাচড়া ও সিটি আংশিক) এ আসনে মনোনয়ন  বাতিল হয়েছে আওয়ামীলীগের সাবেক উপজেলা সাধারণ সম্পাদক স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিলকরা আসাদুজ্জামান বাবলু, স্বতন্ত্র প্রার্থী
সিএম সাদিক ও আলী মো. আলমগীর হোসেন। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও স্থানীয় সরকার প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা, বিএনপির রইচ আহম্মেদ,
মোকাররম হোসেন সুজন ও ওয়াহেদুজ্জামান মাবু, ইসলামী
আন্দোলন বাংলাদেশের মোক্তার
হোসেন, নাগরিক ঐক্যের শাহ্ মো. রহমতুল্লাহ, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির ইশা মোহাম্মদ সবুজ।
রংপুর-২ (বদরগঞ্জ ও তারাগঞ্জ) আসনে মনোনয়ন বাতিল  হয়েছে কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় নেতা আওয়ামী লীগের সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিলকারী বিশ্বনাথ সরকার বিটু, জাসদের কুমারেশ সরকার। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে বর্তমান এমপি
আবুল কালাম মো. আহসানুল হক চৌধুরী ডিউক, জাতীয় পার্টির উপজেলা সভাপতি আসাদুজ্জামান চৌধুরী সাবলু ও প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়া উদ্দিন বাবলু, বিএনপির মোহাম্মদ আলী
সরকার, মাহফুজ উন নবী ডন, স্বতন্ত্র প্রার্থী আনিছুর রহমান মন্ডল, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মো. আশরাফ
আলী, বিকল্পধারার হারুন অর রশিদ, জাকের পার্টির আশরাফ-উজ-জামান।
রংপুর-৩ (সদর ও সিটি) আসনে মনোনয়ন বাতিল
হয়েছে স্বতন্ত্র প্রার্থী নাজমুল হক ও হাবিবুর রহমান সরকার (ফুলু সরকার)। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে জাতীয় পার্টির
চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ, বিএনপির মোজাফফর হোসেন ও রিতা রহমান, জাসদের সাখাওয়াত রাঙ্গা, প্রগতিশীল ডেমোক্রেটিক পার্টির সাব্বির আহম্মেদ, ইসলামী আন্দোলন
বাংলাদেশের আমিরুজ্জামান
পিয়াল, বাসদের আনোয়ার হোসেন বাবলু, জাকের পার্টির আলমগীর হোসেন আলম, খেলাফত মজলিশের তৌহিদুর রহমান মন্ডল, ন্যাশনাল পিপলস
পার্টির ছামসুল হক।
রংপুর-৪ (পীরগাছা ও কাউনিয়া)
আসনে মনোনয়ন বাতিল হয়েছে জাতীয় পার্টির মোস্তফা সেলিম বেঙ্গল এবং বিএনপির আমিনুল ইসলাম রাঙ্গা।
★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে আওয়ামী লীগের বর্তমান
এমপি টিপু মুনশি, বিএনপির এমদাদুল হক ভরসা ও আফছার আলী, বাসদের আব্দুস সাদেক মিয়া, ইসলামী আন্দোলনের মাওলানা বদিউজ্জামান।
রংপুর-৫ (মিঠাপুকুর) আসনে মনোনয়ন বাতিল
হয়েছে বিএনপির প্রার্থী ডা. মমতাজ হোসেন এবং শাহ মো. সোলায়মান আলম, স্বতন্ত্র প্রার্থী হালিম মন্ডল এবং বাংলাদেশ মুসলিম লীগের মওদুদা আখতারের। ★ মনোনয়ন বৈধ
হয়েয়ে জাতীয় পার্টির এসএম ফখর-উজ-জামান জাহাঙ্গীর, বর্তমান এমপি আওয়ামী লীগের এইচএন আশিকুর রহমান,
জাকের পার্টির শামীম মিয়া,
বাসদের মমিনুল ইসলাম, ইসলামী
আন্দোলনের শফিকুল ইসলাম ভোলা মন্ডল ও নাগরিক ঐক্যের মোফাকখারুল ইসলাম নবাবের। এই আসনে ২৩ দলীয় জোটের প্রার্থী জামায়াত নেতা অধ্যাপক গোলাম রব্বানীর মনোনয়নপত্র গ্রহণ করেনি রিটার্নিং কর্মকর্তা। পরবর্তিতে তিনি ইসিতে মনোনয়ন জমা দেন তবে এ বিষয়ে ইসি এখনো কোন সিদ্ধান্ত দেয় নি।
রংপুর-৬ (পীরগঞ্জ) আসনে মনোনয়ন বাতিল হয়েছে ইসলামী আন্দোলনের বেলাল হোসেনের। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে আওয়ামী লীগের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং
জাতীয় সংসদের স্পিকার ও বর্তমান এমপি ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, বিএনপির সাইফুল ইসলাম ও খলিলুর রহমান, হুমায়ুন এজাজ(ন্যাশনার পিপলস পার্টি) , অধ্যাপক কামরুজ্জামান(সিপিবি) ও  এবিএম মাসুদ সরকার (বিএনএফ)

মো. আশিক প্রামানিক (পীরগঞ্জ,রংপুর প্রতিনিধি):

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে
রংপুরের ৮টি উপজেলার  ৬টি আসনে দাখিল করা ৬০টি মনোনয়ন পত্রের মধ্যে ১৪ জনের মনোনয়ন বাতিল ও ৪৬ জনের বৈধ ঘোষণা করেছে রিটার্নিং কর্মকর্তা।
রংপুর-১ (গঙ্গাচড়া ও সিটি আংশিক) এ আসনে মনোনয়ন  বাতিল হয়েছে আওয়ামীলীগের সাবেক উপজেলা সাধারণ সম্পাদক স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিলকরা আসাদুজ্জামান বাবলু, স্বতন্ত্র প্রার্থী
সিএম সাদিক ও আলী মো. আলমগীর হোসেন। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও স্থানীয় সরকার প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা, বিএনপির রইচ আহম্মেদ,
মোকাররম হোসেন সুজন ও ওয়াহেদুজ্জামান মাবু, ইসলামী
আন্দোলন বাংলাদেশের মোক্তার
হোসেন, নাগরিক ঐক্যের শাহ্ মো. রহমতুল্লাহ, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির ইশা মোহাম্মদ সবুজ।
রংপুর-২ (বদরগঞ্জ ও তারাগঞ্জ) আসনে মনোনয়ন বাতিল  হয়েছে কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় নেতা আওয়ামী লীগের সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিলকারী বিশ্বনাথ সরকার বিটু, জাসদের কুমারেশ সরকার। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে বর্তমান এমপি
আবুল কালাম মো. আহসানুল হক চৌধুরী ডিউক, জাতীয় পার্টির উপজেলা সভাপতি আসাদুজ্জামান চৌধুরী সাবলু ও প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়া উদ্দিন বাবলু, বিএনপির মোহাম্মদ আলী
সরকার, মাহফুজ উন নবী ডন, স্বতন্ত্র প্রার্থী আনিছুর রহমান মন্ডল, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মো. আশরাফ
আলী, বিকল্পধারার হারুন অর রশিদ, জাকের পার্টির আশরাফ-উজ-জামান।
রংপুর-৩ (সদর ও সিটি) আসনে মনোনয়ন বাতিল
হয়েছে স্বতন্ত্র প্রার্থী নাজমুল হক ও হাবিবুর রহমান সরকার (ফুলু সরকার)। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে জাতীয় পার্টির
চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ, বিএনপির মোজাফফর হোসেন ও রিতা রহমান, জাসদের সাখাওয়াত রাঙ্গা, প্রগতিশীল ডেমোক্রেটিক পার্টির সাব্বির আহম্মেদ, ইসলামী আন্দোলন
বাংলাদেশের আমিরুজ্জামান
পিয়াল, বাসদের আনোয়ার হোসেন বাবলু, জাকের পার্টির আলমগীর হোসেন আলম, খেলাফত মজলিশের তৌহিদুর রহমান মন্ডল, ন্যাশনাল পিপলস
পার্টির ছামসুল হক।
রংপুর-৪ (পীরগাছা ও কাউনিয়া)
আসনে মনোনয়ন বাতিল হয়েছে জাতীয় পার্টির মোস্তফা সেলিম বেঙ্গল এবং বিএনপির আমিনুল ইসলাম রাঙ্গা।
★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে আওয়ামী লীগের বর্তমান
এমপি টিপু মুনশি, বিএনপির এমদাদুল হক ভরসা ও আফছার আলী, বাসদের আব্দুস সাদেক মিয়া, ইসলামী আন্দোলনের মাওলানা বদিউজ্জামান।
রংপুর-৫ (মিঠাপুকুর) আসনে মনোনয়ন বাতিল
হয়েছে বিএনপির প্রার্থী ডা. মমতাজ হোসেন এবং শাহ মো. সোলায়মান আলম, স্বতন্ত্র প্রার্থী হালিম মন্ডল এবং বাংলাদেশ মুসলিম লীগের মওদুদা আখতারের। ★ মনোনয়ন বৈধ
হয়েয়ে জাতীয় পার্টির এসএম ফখর-উজ-জামান জাহাঙ্গীর, বর্তমান এমপি আওয়ামী লীগের এইচএন আশিকুর রহমান,
জাকের পার্টির শামীম মিয়া,
বাসদের মমিনুল ইসলাম, ইসলামী
আন্দোলনের শফিকুল ইসলাম ভোলা মন্ডল ও নাগরিক ঐক্যের মোফাকখারুল ইসলাম নবাবের। এই আসনে ২৩ দলীয় জোটের প্রার্থী জামায়াত নেতা অধ্যাপক গোলাম রব্বানীর মনোনয়নপত্র গ্রহণ করেনি রিটার্নিং কর্মকর্তা। পরবর্তিতে তিনি ইসিতে মনোনয়ন জমা দেন তবে এ বিষয়ে ইসি এখনো কোন সিদ্ধান্ত দেয় নি।
রংপুর-৬ (পীরগঞ্জ) আসনে মনোনয়ন বাতিল হয়েছে ইসলামী আন্দোলনের বেলাল হোসেনের। ★মনোনয়ন বৈধ হয়েছে আওয়ামী লীগের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং
জাতীয় সংসদের স্পিকার ও বর্তমান এমপি ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, বিএনপির সাইফুল ইসলাম ও খলিলুর রহমান, হুমায়ুন এজাজ(ন্যাশনার পিপলস পার্টি) , অধ্যাপক কামরুজ্জামান(সিপিবি) ও  এবিএম মাসুদ সরকার (বিএনএফ)