২৬, জানুয়ারী, ২০২১, মঙ্গলবার | | ১২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

যমুনা ও ধলেশ্বরী নদী থেকে অবৈধ বালু উত্তোলন, মহাসড়ক অবরোধ

আপডেট: নভেম্বর ৪, ২০১৯

যমুনা ও ধলেশ্বরী নদী থেকে অবৈধ বালু উত্তোলন, মহাসড়ক অবরোধ


কালিহাতী (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি
: টাঙ্গাইলের যমুনা ও ধলেশ্বরী নদী থেকে প্রভাবশালী মহলের অবৈধ বালু উত্তোলনের প্রতিবাদে ঢাকা-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়ক অবরোধ করেছে স্থানীয়রাসোমবার সকাল ১১টার দিকে কালিহাতী উপজেলার জোকারচর এলাকায় মহাসড়ক অবরোধ করেন তারা। এতে মহাসড়কে যানচলাচল বন্ধ হয়ে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে পুলিশ ও প্রশাসনের আশ্বাসে ১২টার দিকে অবরোধ প্রত্যাহার করে স্থানীয়রা

স্থানীয়রা জানান, রাজনৈতিক ছত্রছায়ায় দীর্ঘদিন ধরে একটি প্রভাবশালী মহল অবৈধভাবে যমুনা ও ধলেশ্বরী নদী থেকে বালু উত্তোলন করে আসছে। এতে প্রতিবছর ওই এলাকার শত শত বসতভিটা, রাস্তাঘাট ও ফসলী জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাচ্ছে। চলতি বছরেও ভাঙনে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। গতকাল আবার বালু উত্তোলনের জন্য ধলেশ্বরী নদীতে ড্রেজার বসিয়ে বালু উত্তোলনের চেষ্টা করলে বাধা দেয় তারা।

এ ঘটনায় রোববার রাতে জোকারচর এলাকার চান্দু সরকারের ছেলে মাসুদ রানাকে আটক করে কালিহাতী থানা পুলিশ। সোমবার সকালে মাসুদকে আটকের খবর ছড়িয়ে পড়লে বিক্ষুব্ধ হয় স্থানীয়রা। এতে স্থানীয়রা আজ ঢাকা-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের কালিহাতীর জোকারচর এলাকায় মহাসড়ক অবরোধ করে মাসুদ রানার মুক্তি ও বালু উত্তোলন বন্ধে বিক্ষোভ করে।’

পরে কালিহাতী উপজেলার প্রশাসনের সহকারি কমিশনার (ভূমি) শাহরিয়ার রহমান ঘটনাস্থলে এসে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেয় তারা।

এ বিষয়ে সহকারি কমিশনার (ভূমি) শাহরিয়ার রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন: গ্রামবাসীর দাবির বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিলে স্থানীয়রা অবরোধ তুলে নেয়।