২৭, নভেম্বর, ২০২০, শুক্রবার | | ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

ভোলা মেঘনা নদীর ট্রলার ডুবির ঘটনার ৯ মৃত জেলের বাড়ি চরফ্যাশন উপজেলায়

আপডেট: নভেম্বর ১২, ২০১৯

ভোলা মেঘনা নদীর ট্রলার ডুবির ঘটনার ৯ মৃত জেলের বাড়ি চরফ্যাশন উপজেলায়

ভোলা প্রতিনিধি:-মোঃ-জাফর ইসলামঃ-ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে ভোলার ইলিশা মেঘনা নদীতে ট্রলার ডুবির একদিন পর নিখোঁজ আরও ৯ জেলের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার রাত ৮টার দিকে মেহেন্দীগঞ্জ উপজেলার বাহাদুরপুর চর এলাকার মেঘনা নদী থেকে ডুবে যাওয়া ট্রলারসহ এসব মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

ভোলা পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সন্ধ্যার দিকে স্থানীয় জেলেরা ওই এলাকার মেঘনা নদীতে একটি ট্রলারের এক অংশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। পরে মেহেদীগঞ্জ থানার পুলিশ ওই ট্রলারটিকে উদ্ধার করলে ট্রলারের কেবিন থেকে ৯ জেলের লাশ উদ্ধার করা হয়।

ট্রলার ডুবিতে নিহতরা হলেন- চরফ্যাশনের দুলার হাট এলাকার কামাল দালাল (৩৫), আব্বাস মুন্সি (৪৫), হাসান মোল্লা (৩৮), রফিক বিশ্বাস (৫৫), নুরনবী বেপারী (৩০) মফিজ মাতুব্বর (৩৫) নজরুল ইসলাম (৩৫), কবির হোসেন (৪০) ও মো. বিল্লাল (৩২)।

উল্লেখ্য, রোববার (১০অক্টোবর) চাঁদপুর জেলার মৎস্যঘাট থেকে মাছ বিক্রি করে থেকে উত্তাল মেঘনা নদী দিয়ে চরফ্যাশন উপজেলা আব্দুল্লাহপুর আসছিল ২৪ জেলে। দুপুরের দিকে ইলিশা মেঘনা নদীতে প্রবল স্রোতে ট্রলারটি ডুবে যায়। এরপর ১০ জন জেলেকে জীবিত ও একজনের লাশ উদ্ধার করা হয় ওই দিন। পরে ১৩ জেলে নিখোঁজ থাকে। আজ আরও ৯ জেলের লাশ উদ্ধার করা হয়। এখনও নিখোঁজ ৪ জেলে।