১৩, ডিসেম্বর, ২০১৯, শুক্রবার | | ১৫ রবিউস সানি ১৪৪১

কাজের কথা বলে শ্রমিককে গুম : স্ত্রীর মামলা

আপডেট: ডিসেম্বর ৩, ২০১৯

কাজের কথা বলে শ্রমিককে গুম : স্ত্রীর মামলা


নিকস্ব প্রতিবেদক::  কাজের কথা বলে শ্রমিককে গুম করার অভিযোগে রাজশাহীর চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে একটি মামলা দায়ের হয়েছে।মঙ্গলবার  সকালে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মেহেদী হাসান তালুকদারের আদালতে মামলাটি দায়ের করেন বাঘা থানার বলিহার গ্রামের আমিনুল ইসলামের স্ত্রী জালেমা (৩৫)। আদালত বাঘা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে মামলাটি এজাহার হিসেবে গণ্য করে তদন্তের নির্দেশ দেন। 

ঘটনার সূত্রে জানা যায়, বাঘা থানার বলিহার গ্রামের মৃত মফেল প্রামানিকের পুত্র লালু মিয়া (৫০) বাদীনির স্বামী আমিনুল ইসলাম (৪০)-কে শরিয়তপুর জেলায় ভাল অংকের মজুরীতে কাজের প্রস্তাব দেয়। এ জন্য বাদীনির স্বামীর কাছ থেকে পঞ্চাশ হাজার টাকা গ্রহণ করে। গত ২০১৯ সালের এপ্রিল মাসের ৯ তারিখে বাদীনির স্বামীকে বাড়ি থেকে লালু মিয়া ডেকে নিয়ে শরিয়তপুরের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। তারপর থেকে বাদীনি তার স্বামীর খোঁজ খবর না পেয়ে গত ৯ নভেম্বর আসামীর বাড়িতে যেয়ে তার স্বামীর খোঁজ চাইলে আসামী বলে “তোর স্বামী কোথায় আমি তা জানি না,পারলে তোরা খুঁজিয়া বাহির কর”।
 বাদীনির দাবী তার স্বামীকে আসামী গুম করে হত্যা করেছে মর্মে মামলাটির দরখাস্তে উল্লেখ করেন। অনেক খোঁজাখুঁজির পর স্বামীকে না পেয়ে মামলাটি দায়ের করেন বাদীনি।বাদীর অভিযোগটি আমলে গ্রহণ করে মামলাটি এজাহার হিসেবে গণ্য করে বাঘা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে তদন্তের নির্দেশ দেন চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মেহেদী হাসান তালুকদার।