২২, অক্টোবর, ২০২০, বৃহস্পতিবার | | ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

শিক্ষামন্ত্রীর লাইভে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর ‘চুমু’র ছবি ভাইরাল

আপডেট: অক্টোবর ৭, ২০২০

শিক্ষামন্ত্রীর লাইভে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর ‘চুমু’র ছবি ভাইরাল

অনেক জল্পনা-কল্পনার পর অবশেষে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা বাতিল ঘোষণা করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। দীর্ঘ প্রায় ছয় মাস স্থগিত থাকার পর আজ বুধবার (৭ অক্টোবর) ভার্চুয়াল বৈঠকে এই ঘোষণা দেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। জুম প্লাটফর্ম ব্যবহার করে আয়োজিত এই বৈঠক কয়েকটি টেলিভিশন চ্যানেল সরাসরি সম্প্রচার করে। লাইভ চলাকালীন পরীক্ষা বাতিলের ঘোষণার সময় টিভি স্ক্রিনে শিক্ষামন্ত্রীকে ‘চুমু’ দেন এক পরীক্ষার্থী। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে যা মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায়।

ভাইরাল হওয়া ছবিতে দেখা গেছে, নেভি-ব্লু টি শার্ট পড়া জনৈক ছাত্রী টেলিভিশনের স্ক্রিনে শিক্ষামন্ত্রীকে ‘চুমু’ দিচ্ছেন। তবে ছবিটি কোথা থেকে তোলা কিংবা ওই শিক্ষার্থী কে সে বিষয়ে কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। ফেসবুকে আপলোডের পর থেকেই ছবিটি অনেকে শেয়ার করছেন। ফলে তা মুহূর্তের মধ্যেই ভাইরাল হয়ে যায়।

এদিকে পরীক্ষা বাতিলের ঘোষণা আসার পর ফেসবুকেসহ বিভিন্ন প্লাটফর্মে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের উচ্ছ্বাস প্রকাশ করতে দেখা গেছে। শিক্ষামন্ত্রীর এ ঘোষণাকে তারা ‘এইচএসসির ফল প্রকাশ’ হিসেবে দেখছেন। আর সাথে সাথে প্রশংসায় ভাসাচ্ছেন শিক্ষামন্ত্রী ও শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্টদের। পরীক্ষার্থীরা বলছেন, আজকের এমন ঐতিহাসিক ঘোষণার পর শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনিকে সবাই ভুলে গেলেও এবারের এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা কখনও ভুলবেন না।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ঢাকা রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থী অর্ণব সাহা বলেন, আমরা ৬ মাসেরও বেশি সময় ধরে অপেক্ষা করছি এ ঘোষণার জন্য। অবশেষে বহুল কাঙ্ক্ষিত ঘোষণা আজ পেয়েছি। এ যেন এইচএসসি পরীক্ষার ফল পেয়েছি!

তিনি বলেন, মহামারি এই ভাইরাস কতদিন থাকবে, কবে ভ্যাকসিন আসবে তার কোন নিশ্চয়তা নেই। তাছাড়াও শীতে বাড়বে বলে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিজেই জানিয়েছেন। এতে পরীক্ষা পেছানোর আর কোন কারণ দেখছিনা। দ্রুত সময়ের মধ্যে এরকম একটি সিদ্ধান্তের জন্য চলতি সপ্তাহে আমরা প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রী বরাবর এক স্মারকলিপিও দিয়েছিলাম।

রবিউর রহমান সায়েম এক এইচএসসি পরীক্ষার্থী বলেন, পরীক্ষার ব্যাপারে আজকে কোন সিদ্ধান্ত দেয়নি। মনে হয় যেন এইচএসসির রেজাল্ট দিয়েছে।

তাবাসসুম আনিকা নামে আরেক পরীক্ষার্থী বলেন, ধন্যবাদ মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। সবার কথা ভেবেছেন আপনি।

দেলোয়ার খান নামে আরেক এইচএসসি পরীক্ষার্থী বলেন, এতদিন অপেক্ষার পর আজ এটাই প্রমাণিত হল যে, মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনিকে সবাই ভুলে গেলেও এবারের এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা কখনোই ভুলবে না।

প্রসঙ্গত, করোনাভাইরাসের কারণে ১৮ মার্চ থেকে বন্ধ হয়ে যায় সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এরপর ১ এপ্রিল থেকে শুরু হওয়া এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষাও স্থগিত হয়েছে। এরমধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি বেশ কয়েক দফা বাড়িয়ে আগামী ৩১ অক্টোবর করা হয়েছে। তবে এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে ১৪ লাখ শিক্ষার্থী ও তাদের পরিবার বেশ উদ্বেগের মধ্যে ছিল।