১০, জুলাই, ২০২০, শুক্রবার | | ১৯ জ্বিলকদ ১৪৪১

ভাঙা পা নিয়ে ধানের শীষের প্রচারণায় শরীফুল আলম

আপডেট: ডিসেম্বর ২০, ২০১৮

ভাঙা পা নিয়ে ধানের শীষের প্রচারণায় শরীফুল আলম


আশরাফুল ইসলাম তুষার(কিশোরগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি) :ভাঙা পা নিয়ে নির্বাচনী গণসংযোগ চালিয়ে ধানের শীষ প্রতীকে ভোট চেয়েছেন কিশোরগঞ্জ-৬ আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী শরীফুল আলম।
বুধবার বিকেলে কুলিয়ারচর উপজেলার পৌর এলাকার ৫নং ওয়ার্ডে গণসংযোগ করেন তিনি। পরে একটি উঠান বৈঠকে ভোটারদের কাছে ধানের শীষে ভোট চান তিনি।
শরীফুল আলম বলেন, আওয়ামী লীগের লোকজন আমার গায়ে হাত দেয়নি, কিন্তু আমার পায়ে আঘাত করে পা ভেঙে দিয়েছে। আজ আমি ভাঙা পা নিয়ে আপনাদের কাছে এসেছি। ঠিক মতো নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে পারছি না। আওয়ামী লীগ প্রার্থী অবাধে নির্বাচনী প্রচারণা চালাচ্ছেন। বর্তমান সরকার আমার নামে মিথ্যা মামলা ও তাদের নেতাকর্মীদের দিয়ে আমার ওপর হামলা চালিয়ে নির্বাচনী প্রচারণা থেকে দূরে রাখতে চাইছে। তবুও আমি আপনাদের মাঝে এসেছি। আপনারা ভোটের দিন কেন্দ্র পাহারা দিন।
এদিকে, একই আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী নাজমুল হাসান পাপন বুধবার সকালে কুলিয়ারচর উপজেলার কুলিয়ারচর বাজারে গণসংযোগ করে ভোটারদের কাছে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়েছেন।
নাজমুল হাসান পাপন বলেন, বিএনপি খুনির দল, তারা স্বাধীনতায় বিশ্বাস করে না। বিএনপি ক্ষমতায় আসলে এদেশে জঙ্গিবাদ বেড়ে যাবে, আওয়ামী লীগের কর্মীদের খুন করবে। কাজেই তাদেরকে ভোট দেবেন না। শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় থাকলে দেশের উন্নয়ন হয়। এদেশের মানুষ সুখে থাকে। তাই নৌকা মার্কায় ভোট দিন।
১৩ ডিসেম্বর বিএনপির প্রার্থী শরীফুল আলম কুলিয়ারচর এলাকায় নির্বাচনী প্রচারণার সময় পুলিশ ও আওয়ামী লীগের কর্মীদের হামলায় ইটের আঘাতে পায়ে ব্যথা পান। পরে জানা যায় তার পা ভেঙে যায়।
গত পাঁচদিন পায়ের ব্যথার কারণে নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে পারেননি তিনি। বুধবার নিজের ওয়ার্ডে ভাঙা পা নিয়ে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেন শরীফুল আলম।