১০, মে, ২০২১, সোমবার | | ২৮ রমজান ১৪৪২

কুষ্টিয়ায় মদের দোকানে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

আপডেট: জুন ২৬, ২০১৯

কুষ্টিয়ায় মদের দোকানে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

কুষ্টিয়াজেলাপ্রতিনিধি:রাকিবুল ইসলাম:    
মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচার বিরোধী দিবস উপলক্ষে কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসকের কার্যালয় আলোচনা সভায অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উন্মুক্ত আলোচনায় এক সাংবাদিক তুলে ধরেন কুষ্টিয়ার দেশীয় মদ বিক্রেতা শ্রী গৌতম কান্তি চাকীর মদের দোকানে পারমিট বিহীন কিছু মাদকসেবী ও অসাধু মাদক বিক্রেতা দেশীয় মদ ক্রয় করে শহরের বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে দিচ্ছে। এতে করে কুষ্টিয়ায় মাদকের অপব্যবহার বৃদ্ধি পেয়েছে।
ওই সাংবাকের বক্তব্যের সত্যতা যাচাই করতেই কুষ্টিয়ায় জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার সঙ্গে সঙ্গে ডিবি পুলিশ পাঠান এবং কথার সত্যতা নিশ্চিত হন।
উপস্থিত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা সেখান থেকে অনুমোদন ছাড়া মাদক ক্রয় করছে এমন ২২ জনকে আটক করেন। পরে জেলা প্রশাসকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরিফুল ইসলাম ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন। আদালতের হাকিম ২২ জনের নিকট থেকে মুচলেকা নিয়ে তাদের ছেড়ে দেন। এসম তিনি বলেন লাইসেন্সধারী মদের দোকানের বিরুদ্ধে লাইসেন্স প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের আইনগত ব্যবস্থা নিতে হয়। এরই ফলে কুষ্টিয়া জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শিরীন আক্তার ওই দেশী মদের দোকানের মালিক কে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। 
এদিকে এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায় গৌতম চাকরি এই মদের দোকানে প্রতিদিন সকাল ৮ টা থেকে ১২ টা পর্যন্ত বিভিন্ন শ্রেণী পেশার লোক ভিড় জমিয়ে মদ ক্রয় করে থাকে। যার মধ্যে অধিকাংশই মদ সেবন কারির মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ কার্যালয়ের পারমিট নেই।