৪, আগস্ট, ২০২১, বুধবার | | ২৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

ঝালকাঠীতে নানা আয়োজনে জাতীয় প্রতিবন্ধী দিবস পালিত

আপডেট: ডিসেম্বর ৩, ২০১৮

ঝালকাঠীতে নানা আয়োজনে জাতীয় প্রতিবন্ধী দিবস পালিত

নাঈমুর রহমান শান্ত, ঝালকাঠী প্রতিনিধি: সাম্য ও অভিন্ন যাত্রায় প্রতিবন্ধী মানুষের ক্ষমতায়ন’ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে ঝালকাঠীতে ২৭তম আর্ন্তজাতিক ও ২০তম জাতীয় প্রতিবন্ধী দিবস পালিত হয়েছে।

সোমবার (৩ ডিসেম্বর’১৮) ঝালকাঠী  জেলা প্রশাসন ও সমাজসেবা অধিদফতরের উদ্যোগে বর্ণাঢ্য র‌্যালি, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, প্রতিবন্ধী পরিচয়পত্র ও পুরস্কার বিতরণসহ নানা কর্মসূচির মাধ্যমে দিবসটি পালিত হয়েছে।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের  সামনে থেকে র‌্যালিটি শুরু হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে সুইড বাংলাদেশ বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ে গিয়ে শেষ হয়। দৃষ্টি, শারীরিক, মানসিক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ছেলেমেয়ে; সরকারি কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, চিকিৎসক, শিক্ষক, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ র‌্যালিতে অংশ নেন।
এরপর বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. হামিদুল হক । সমাজসেবা অধিদফতরের উপপরিচালক স্বপন কুমার মুখার্জীর সভাপতিত্বে সিভিল সার্জন ডাক্তার শ্যামল কৃষ্ণ হাওলাদার, সুইড বাংলাদেশের জেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট মাহাবুবার রহমান তালুকদার, প্রতিবন্ধী সাহায্য ও সেবা কেন্দ্রের কনসালটেন্ট সিরাজুম মুনিরা উর্মি, সমাজসেবা অধিদফতরের রেজিস্ট্রেশন অফিসার মোঃ আজাহার মিয়া, জেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক মনোয়ার হোসেন খান, প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক ফয়সাল রহমান জসিম, দেশবাংলা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান, বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক লুৎফুন্নেছা নীলু, স্বাধীন বাংলা প্রতিবন্ধী ও অটিস্টিক বিদ্যালয়ের সভাপতি অ্যাডভোকেট শামীম জাহাঙ্গীর, কানুদাসকাঠি প্রতিবন্ধী স্কুলের প্রধান শিক্ষক মোঃ কামরুজ্জামান, প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী ইয়াসিন তারেক প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

বক্তারা বলেন, সমাজে প্রতিবন্ধী মানুষের মৌলিক চাহিদা পূরণ, স্বাভাবিক ও সম্মানজনক জীবনযাপনের অধিকার
রয়েছে। মানুষ হিসেবে বেঁচে থাকার নূন্যতম মৌলিক অধিকারগুলো তাদের ন্যায্যপ্রাপ্য। তাই প্রতিবন্ধীদের প্রতি
আন্তরিক ভালোবাসা প্রদর্শন ও সহানুভূতিশীল হওয়ার পরামর্শ দেন বক্তারা।

একই স্থানে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং পরিচয়পত্র ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে প্রতিবন্ধী ছেলেমেয়েরা নাচ, গান ও কবিতা আবৃত্তিতে অংশগ্রহণ করে। অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আরিফুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার মাহামুদা জাহান, সদর উপজেলা সমাজসেবা অফিসার আসাদুজ্জামান পলাশ, সরকারি শিশু পরিবারের উপতত্ত্বাবধায়ক নাহিদ জাহান তুফাসহ বিশিষ্টজনরা উপস্থিত ছিলেন।